প্রাগৈতিহাসিক শিল্পকলা - হাতেখড়ি

প্রাগৈতিহাসিক শিল্পকলা

এস এম মারুফুল হাসান নিরব, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়:

পুরানো প্রস্তর যুগের পরে যখন তুষার যুগ আরম্ভ হয়, তখন মানুষ পাহাড়ের গুহায় আশ্রয় গ্রহণ করে। এর ফলে মানুষের আচার আচরণ বদলাতে বাধ্য হয়। প্রথম জীবনে তারা ফলমূল খেয়ে জীবনধারণ করত। কিন্তু তুষার যুগে তারা পশু শিকার করতে শুরু করল। এ সময়ে তারা আগুন আবিষ্কার করে ফলে বিরাট পরিবর্তনের সূচনা হয়। এর ফলে মানুষ তুষার যুগে টিকে থাকতে সমর্থ হয়।

আদিম মানবের আগুন আবিষ্কার তুষার যুগের পূর্বে মানুষ পাথরের অস্ত্র তৈরি করত। এ অস্ত্রগুলো তেমন মজবুত এবং সুদর্শন ছিল না। কিন্তু মানুষ যখন থেকে শিকার করা আরম্ভ করলো তখন থেকে নতুন নতুন অস্ত্রের প্রচলন শুরু হলো। এ সময়টাতে মানুষ নিজেদের বাসস্থানে চিত্র অঙ্কন শুরু করে । প্রাচীনকাল থেকেই মানুষ চিত্রাঙ্কনের চেষ্টা শুরু করে। গুহাচিত্রগুলো পশু শিকারযুগের। প্রায় ১৫ হতে ২০ হাজার বছরের মদ্ধ্যে এগুলো তৈরি হয়েছিল।যেসব গুহাগুলোতে চিত্র আঁকা হয়েছিল এমন কয়েকটি গুহা হলোঃ

 আলতামিরা, স্পেন
 লাসকো(Lascax), ফ্রান্স
 ট্রাস (Trois), ফ্রান্স
 পেচ মারলে(Pech-Merle), ফ্রান্স
 পিনডাল,( Pindal), স্পেইন
 পাসিগা (Pasiega), উত্তর স্পেইন
 রুফিগনেগ (Rouffignac), ফ্রান্স

এসব গুহাগুলো মাঝে দক্ষিণ ফ্রান্সের লাসকো (Lascaus) গুহার চিত্রই সবচেয়ে প্রচীন। সম্ভবত বিশ থেকে ত্রিশ বছর পূর্বে এ চিত্রগুলো আঁকা হয়েছিল। এ চিত্রগুলো বেশ স্পষ্টভাবে পাওয়া গিয়েছে । চিত্রগুলোর প্রকৃতি চিনতে অসুবিধা হয় না। এ চিত্রগুলো আদিম শিল্পকলার অংশ। এছাড়াও অন্যান্য গুহা থেকেও অসংখ্য আদিম শিল্পের নিদর্শন পাওয়া গিয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *